সোমবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৭, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৪
গুরুত্বপূর্ণ সংবাদ

‘সার্ক আউটস্ট্যান্ডিং লিডার’-এর সম্মাননা পেলেন লতিফুর রহমান

ডেস্ক রিপোর্ট | আমারক্যাম্পাস২৪.কম

Published: 2017-07-30 17:04:46

ব্যবসা-বাণিজ্যের সঙ্গে সামাজিক দায়বদ্ধতা ও নীতিগত মূল্যবোধের আদর্শ মেলবন্ধন ঘটানোর বিরল নজির সৃষ্টি করার আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পেলেন বাংলাদেশের ট্রান্সকম গ্রুপের চেয়ারম্যান লতিফুর রহমান।

গত শুক্রবার রাতে ভারতের অর্থনৈতিক রাজধানী মুম্বাইয়ের তাজ ল্যান্ডস অ্যান্ড হোটেলে লতিফুর রহমানকে এই বছরেরসার্ক আউটস্ট্যান্ডিং লিডার’-এর সম্মাননা তুলে দেওয়া হয়

আয়োজকসিইও অ্যাওয়ার্ডস’-এর পক্ষে ভারতের বৃহত্তম সংবাদপত্র গোষ্ঠীটাইমস অব ইন্ডিয়া সাবেক সিইও রবি ধারিওয়াল এই সম্মাননা প্রদান করে বলেন, ‘যোগ্যতম মানুষকে এই সম্মানে ভূষিত করে সংগঠকেরা গর্বিত।ভিড়ে ঠাসা ব্যাঙ্কোয়েট হলে দক্ষিণ এশিয়ার বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের অর্ধশতাধিক শীর্ষস্থানীয় সিইও এবং শিল্প পরিচালকদের সঙ্গে লতিফুর রহমানের পরিচয় করিয়ে দেন পেপসিকোর ইন্ডিয়া রিজিয়নের চেয়ারম্যান শিবকুমার। তিনি বলেন, ‘ব্যক্তিগত পেশাগত জীবনে সৎ, নিষ্ঠাবান দয়ালু থেকে কীভাবে এক বাণিজ্যিক সাম্রাজ্য প্রতিষ্ঠা করা যায়, লতিফুর রহমান তার নিদর্শন। পারিবারিক বিপর্যয় সত্ত্বেও কীভাবে লক্ষ্যে অবিচল বিনম্র থাকতে হয়, সেই শিক্ষা তাঁর কাছ থেকে আমরা পেয়েছি।

ভারতের গণ্ডি পেরিয়ে এই প্রথমসিইও অ্যাওয়ার্ডসকে আন্তর্জাতিক করে তোলা হলো। আর প্রথম বছরেই সেই সম্মাননা পেলেন লতিফুর রহমান। প্রবল করতালির মধ্যে ভাবাবেগে আপ্লুত লতিফুর রহমান বলেন, ‘আমি অভিভূত। আরও অভিভূত প্রথম কোনো বিদেশি হিসেবে এই পুরস্কার পেয়ে।তিনি বলেন, বাংলাদেশকে প্রথমেই বেছে নেওয়ার জন্যও সংগঠকদের ধন্যবাদ। দুই দেশের সম্পর্ক দিনে দিনে শুধু বহুমুখীই হয়ে ওঠেনি, দুই দেশ পরস্পরের প্রকৃত বন্ধুও হয়ে উঠেছে, যা এই উপমহাদেশের পক্ষে মঙ্গলজনক

ট্রান্সকম গ্রুপের কর্মকাণ্ড তার চেয়ারম্যানের সঙ্গে উপস্থিত সুধীজনদের পরিচয় করিয়ে দিতে গিয়ে শিবকুমার গত বছরের জুলাই হোলি আর্টিজান রেস্তোরাঁয় ভয়াবহ হত্যাকাণ্ডের কথা উল্লেখ করেন। পারিবারিক সেই ট্র্যাজেডির কাহিনি উঠে আসে লতিফুর রহমানের কথায়ও, যে ঘটনায় তাঁর নাতি ফারাজ আইয়াজ হোসেন এবং তাঁর দুই বন্ধু অবিন্তা কবির তারিশি জৈন সন্ত্রাসীদের হাতে নিহত হয়েছিলেন। তিনি বলেন, ‘বন্ধুত্বের সংজ্ঞা ঠিক কী রকম, ফারাজ তা শিখিয়ে গেছে। ওই ঘটনার পর আমি বহু ভেবেছি, আমি কি ওর মতো সাহসী হতে পারতাম? ফারাজের নানা হিসেবে আমি গর্ববোধ করি। এই পুরস্কার আমি তাকেই সমর্পণ করছি।

কীভাবে পুরস্কৃতদের বাছাই করা হয়, তা ব্যাখ্যা করে হিন্দুস্তান ইউনিলিভারের সিইও গত বছরের অন্যতম পুরস্কার বিজেতা সঞ্জীব মেহতা বলেন, দেশ-বিদেশের প্রায় দেড় হাজার প্রতিষ্ঠানের সিইওদের মধ্য থেকে প্রতি বিভাগে ৫০ জন নেতাকে প্রাথমিকভাবে বাছাই করা হয়। তারপর তা পাঠানো হয় বিচারকদের কাছে, যাঁরা প্রতি বিভাগ থেকে একজন করে সেরা বেছে নেন

বিদেশি সিইও হিসেবে কেন লতিফুর রহমানকে সেরার স্বীকৃতি দেওয়া হলো, সেই ব্যাখ্যা দিয়ে সঞ্জীব মেহতা বলেন, সমাজের প্রতি প্রতিষ্ঠানের দায়বদ্ধতা এবং সামাজিক মূল্যবোধগুলো লালন করার মধ্য দিয়ে সার্বিক প্রেরণা সৃষ্টির দিকেও গ্রুপের চেয়ারম্যান হিসেবে তিনি সব সময় সমান যত্নবান রয়েছেন

অন্যতম উদ্যোক্তাসিইও লাউঞ্জ’-এর প্রতিষ্ঠাতা দীপক যাদব বলেন, কাজ জীবনের মধ্যে ভারসাম্য কীভাবে রক্ষা করতে হয়, লতিফুর রহমান তার দৃষ্টান্ত। তিনিই রোল মডেল

বছর বিভিন্ন বিভাগে আরও যাঁরা পুরস্কৃত হলেন, তাঁদের মধ্যে রয়েছেন টাটা গ্রুপের চেয়ারম্যান এন চন্দ্রশেখরন, ম্যারিকোর চেয়ারম্যান হর্ষ মারিওয়ালা, জিন্দাল স্টিলের চেয়ারম্যান সজ্জন জিন্দল, আইসিআইসিআই ব্যাংকের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান নারায়ণন ভাগল, ওগিলভির চেয়ারম্যান অ্যাগ গুরু পীযুষ পান্ডে, মাহিন্দ্র অ্যান্ড মাহিন্দ্রর ম্যানেজিং ডিরেক্টর পবন গোয়েঙ্কা, বিগ বাস্কেটের প্রতিষ্ঠাতা সিইও হরি মেনন, সেবা ব্যাঙ্কের ম্যানেজিং ডিরেক্টর জয়শ্রী ব্যাস এবং ভারতের বিদ্যুৎ শক্তি মন্ত্রণালয়ের উপদেষ্টা অধ্যাপক অশোক ঝুনঝুনওয়ালা

শিল্প-বাণিজ্যের কৃতী পুরস্কৃতদের পরিচয় করিয়ে দেওয়ার দায়িত্ব নিয়েছিলেন ভারতীয় শিল্প-বাণিজ্যের কর্ণধারেরা, যাঁদের মধ্যে ছিলেন আইশার গোষ্ঠীর চেয়ারম্যান ইমেরিটাস সুবোধ ভার্গব, লগ্নিকারী বিশেষজ্ঞ অঞ্জলি বনসল, প্রাইস ওয়াটার হাউস কুপার্সের চেয়ারম্যান শ্যামল মুখার্জি, ইন্ডিয়া হোটেলসের ম্যানেজিং ডিরেক্টর রাকেশ সরনা। সাবেক ভারতীয় টেস্ট ক্রিকেটার অরুণলাল, অভিনেতা মিলিন্দ সোনম আইসিআইসিআই ব্যাংকের চেয়ারম্যান চন্দা কোচার কৃতী কর্ণধারদের জীবনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন। চন্দা কোচারের টিপস, ‘বোর্ডরুমের গুরুগম্ভীর পরিবেশ কীভাবে হালকা রাখতে হয়, তা আইসিআইসিআইয়ের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান নারায়ণন ভাগলের কাছ থেকে শেখা। শিল্প কর্ণধারদের কৌতুক বলা বোঝা বাণিজ্য বিকাশে খুব জরুরি। ভারাক্রান্ত মন শিল্পসহায়ক হতে পারে না। মনটা ফুরফুরে রাখা দরকার।

বাংলাদেশ থেকে যোগ দিয়েছিলেন এইচএসবিসি ব্যাংকের ডেপুটি সিইও মহম্মদ মাহবুব উর রহমান, প্রাইস ওয়াটারহাউস কুপার্সের ম্যানেজিং পার্টনার মামুন রশিদ এবং সিটি ব্যাংকের করপোরেট ইনভেস্টমেন্ট ব্যাংকিং ডিরেক্টর শামস জামান

 

 

ঢাকা/ এইচ আর